মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩

১৭৫ কোটি টাকা পাচারে অভিযুক্ত আল মুসলিম গ্রুপ

স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের সাবেক এমডিসহ ৮ জনের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের সাবেক এমডিসহ ৮ জনের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

সোমবার, ১ ফেব্রুয়ারী, ২০২১

 

 

৩৭২ বার পড়া হয়েছে

প্রিয় পাঠকঃআল মুসলিম গ্রুপের বিরুদ্ধে ১৭৫ কোটি টাকা পাচারের তথ্য পেয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন-দুদক। প্রাথমিক অনুসন্ধানে এ তথ্য মিললেও পাচারের পরিমাণ আরো বেশি হতে পারে বলে ধারণা করছে দুদক। দেশ থেকে প্রতি বছর ৬৪ হাজার কোটি টাকা বিদেশে পাচারের অন্যতম অংশীদার আল মুসলিম গ্রুপ বলেও জানিয়েছে সংস্থাটি।
গ্লোবাল ফিন্যানশিয়াল ইন্টিগ্রিটির তথ্য অনুযায়ী দেশ থেকে প্রতি বছর কমপক্ষে ৬৪ হাজার কোটি টাকা বিদেশে পাচার হয়। আমদানিতে ওভার ইনভয়েস বা পণ্যের অতিরিক্ত দাম দেখিয়ে টাকা বিদেশে পাচার হয় বলে মনে করেন শুল্ক গোয়েন্দারা।
মূলত পোশাক খাত থেকে সিংহভাগ টাকা পাচার হয় বলে অভিযোগ এসেছে দুদকের কাছে। যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা, অস্টেলিয়া, সংযুক্ত আরব আমিরাতসহ মধ্যপ্রাচ্যের বেশির ভাগ দেশে পাচার হয় টাকা। আল মুসলিম গ্রুপের বিরুদ্ধে এমন সুনির্দিষ্ট তথ্য পেয়েছে দুদক।
দুদক কমিশনার আমিনুল ইসলাম জানান, প্রাথমিকভাবে ১৭৫ কোটি টাকা পাচারের তথ্য মিলেছে। তথ্য-উপাত্ত যাচাই করে আল মুসলিমসহ অন্য সব অবৈধ অর্থ পাচারকারীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। এজন্য তিন সদস্যের অনুসন্ধান দলও গঠন করেছে সংস্থাটি।
আল মুসলিম গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শেখ মোহাম্মদ আবদুল্লাহ জানান, আল মুসলিম গ্রুপের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগের কোনো সত্যতা নেই। দেশের জন্য কাজ করজে এই প্রতিষ্ঠানটি।
টিআইবির নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান বলেন, শুধু ওভার ইনভয়েস নয়, পাচারকারীরা অন্য কোনো নতুন কৌশল অবলম্বন করছে কিনা তাও খতিয়ে দেখতে হবে।
দেশ গড়ার কথা বলে কোনো কোনো প্রতিষ্ঠান দেশের অর্থনীতিকে খোঁড়া করে দিচ্ছে, তাদের তালিকা করে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা উচিৎ বলে মনে করে টিআইবি।

ট্যাগ :

আরো পড়ুন