মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩

করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত রপ্তানিমুখী শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোর সুবিধা বাড়লো

করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত রপ্তানিমুখী শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোর সুবিধা বাড়লো

করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত রপ্তানিমুখী শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোর সুবিধা বাড়লো

সোমবার, ২৬ এপ্রিল, ২০২১

 

 

২৫২ বার পড়া হয়েছে

প্রিয় পাঠকঃকরোনায় ক্ষতিগ্রস্ত রপ্তানিমুখী শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোকে প্রি-শিপমেন্ট রপ্তানি ঋণ সহায়তার জন্য ৫ হাজার কোটি টাকার পুন:অর্থায়ন তহবিল সুবিধা দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। এ তহবিল হতে প্রি-শিপমেন্ট ক্রেডিট খাতের গ্রাহক পর্যায়ের ঋণের সুদ হার এক শতাংশ কমিয়ে ৫ শতাংশ নির্ধারণ করে দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। একই সঙ্গে ব্যাংক পর্যায়েও সুদহার এক শতাংশ কমানো হয়েছে।
কেন্দ্রীয় ব্যাংকের ব্যাংকিং প্রবিধি ও নীতি বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত একটি সাকুর্লার জারি করে। সার্কুলারটি সব তফসিলি ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহীদের নিকট পাঠানো হয়েছে। ব্যাংক কোম্পানি আইন, ১৯৯৯ এর ৪৫ ধারায় প্রদত্ত ক্ষমতাবলে এ নির্দেশনা জারি করা হলো।
নতুন নির্দেশনা অনুযায়ী, গ্রাহক পর্যায়ে সুদহার হবে সর্বোচ্চ ৫ শতাংশ এবং ব্যাংক পর্যায়ে সুদহার-বাংলাদেশ ব্যাংক হতে ব্যাংক সমূহ কর্তৃক গৃহীত পুন:অর্থায়ন সুবিধার ওপর ২ শতাংশ হারে সুদ আরোপ করা হবে। এ নির্দেশনা অবিলম্বে কার্যকর হবে।
সার্কুলারে বলা হয়, প্রি-শিপমেন্ট ক্রেডিট পুন:অর্থায়ন স্কিম-এর আওতায় স্বল্প সুদে ঋণ প্রাপ্তি নিশ্চিত করার মাধ্যমে রপ্তানি খাতে অধিকতর প্রবৃদ্ধি অর্জন করার লক্ষ্যে গ্রাহক ও ব্যাংক পর্যায়ে সুদহার হ্রাস করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে। এ লক্ষ্যে বিআরপিডি পূর্বের সার্কুলার প্রতিস্থাপন করা হলো।
এর আগে ২০২০ সালের ১৩ই এপ্রিল জারিকৃত বিআরপিডি সার্কুলারে কোভিড-১৯ মহামারির কারণে ক্ষতিগ্রস্ত রপ্তানিমুখী শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোকে প্রি-শিপমেন্ট রপ্তানি ঋণ সহায়তা দেয়ার মাধ্যমে তাদের রপ্তানি কার্যক্রম অব্যাহত রেখে বৈদেশিক মুদ্রা অর্জন ও অর্থনীতিতে গতিশীলতা আনয়নের লক্ষ্যে বাংলাদেশ ব্যাংক কর্তৃক ৫ হাজার কোটি টাকার পুন:অর্থায়ন তহবিল সুবিধা দেয়া হয়। এ তহবিল হতে প্রি-শিপমেন্ট ক্রেডিট খাতে গ্রাহক পর্যায়ে ঋণের সুদহার সর্বোচ্চ ৬ শতাংশ এবং বাংলাদেশ ব্যাংক হতে ব্যাংকসমূহ কর্তৃক গৃহীত পুন:অর্থায়ন সুবিধার ওপর সুদহার ৩ শতাংশ নির্ধারণ করা হয়।।

ট্যাগ :

আরো পড়ুন